Skip to toolbar
শচীনের ৪৭ তম জন্মদিন

আজ শচীনের ৪৭ তম জন্মদিন, জন্মদিন পালন করবেন না এবার মাস্টার ব্লাস্টার

আজ শচীনের ৪৭ তম জন্মদিন – ৪৭ তম জন্মদিনে পা দিলেন মাস্টার ব্লাস্টার শচীন রমেশ টেন্ডুলকার। আজকের দিনটা ক্রিকেট বিশ্বের কাছে এক বিশেষ দিন, কারণ আজ থেকে ৪৭ বছর আগে জন্ম নিয়েছিলেন ক্রিকেটের ঈশ্বর শচীন রমেশ টেন্ডুলকার।

ভারতে করোনা ভাইরাসের প্রভাব দিন দিন বৃদ্ধি হওয়ার কথা মাথায় রেখেই এবার ৪৭ তম জন্মদিন পালন করবেন না শচীন রমেশ টেন্ডুলকার। এবারের জন্মদিন পালন না করার কথা জানিয়েছেন শচীন।

শচীনের ৪৭ তম জন্মদিন

১৯৮৯ সালে মাত্র ১৬ বছর বয়সে ক্রিকেট দুনিয়ায় পা রেখেছিলেন শচীন টেন্ডুলকার। ক্রিকেট দুনিয়ায় পা রাখার প্রথম দিন থেকেই বিশ্বকে মনোরঞ্জন দিতে শুরু করেছিলেন তিনি। একের পর এক রেকর্ড ভেঙে নতুন রেকর্ড তৈরি করতে থাকেন শচীন।

শচীন টেন্ডুলকার টেস্ট এবং ওয়ানডে রেকর্ড

শচীনের ৪৭ তম জন্মদিন
Sachin Tendulkar 47th birthday

শুধু ভারতবর্ষ নয় সমগ্র বিশ্বের কাছ থেকে প্রচুর ভালবাসা পেয়েছেন শচীন।  সারা ভারত তথা বিশ্বের কোটি কোটি মানুষের প্রত্যাশাকে  বুকে নিয়ে ব্যাট করতে নামতেন শচীন।

আরও পড়ুন ☛ শচীন বনাম শোয়েব আকতার

একটা সময়ছিল যখন শচীন আউট হবার পর সবাই টিভি বন্ধ করে দিত। ভারত হারলো না জিতল সেই নিয়ে তেমন মাথাব্যথা ছিল না, সবাই জানতে চাইত আজকে শচীন কত রান করেছে?

আসলে প্রত্যেকেরই মনে হতো শচীনের প্রতিটা রান আমার নিজের তৈরি করা রান। এজন্যই কবি জয় গোস্বামী বলেছিলেন শচীনের প্রতিটা রানে প্রত্যেক ভারতবাসীর অধিকার। কারণ শচীন কোনওদিন একা খেলেন নি শচীনের সঙ্গে সঙ্গে সারা ভারত খেলেছে।

কোটি কোটি মানুষের প্রত্যাশার বোঝা দীর্ঘ ২৩ বছর ধরে বয়ে তবেই শচীন টেন্ডুলকার ক্রিকেটের ঈশ্বর হয়েছেন।

গ্যালারি থেকে ভেসে আসা ‘শচীন শচীন’ চিৎকার এখনো পর্যন্ত ভারতবর্ষের কানে বাজতে থাকে। আসলে শচীন কোন ক্রিকেটার নয় শচীন ছিল বিশ্বাস শচীন ছিল ধর্ম। শচীন আউট হয়ে যাওয়ার পর বিরোধীপক্ষের দর্শকদেরকেও চুপচাপ বসে থাকতে দেখা গেছে মাঠে। শচীনের শতরান পূর্ণ হওয়ার জন্য শুধু ভারত নয় সারা বিশ্ব অপেক্ষা করত একদিন। এজন্যই শচীন সবার থেকে আলাদা।

যেন ক্রিকেট খেলাটাই তৈরি হয়েছিল শচীনের জন্য আর শচীন জন্ম নিয়েছিলেন ক্রিকেটের জন্য।

২০০৩ বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে শচীন টেন্ডুলকারের ৯৮ রান কিংবা সার্জার সেই মরুঝড় আজো বিশ্ববাসী ভুলে যায়নি। ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেটে ১০০ তম সেঞ্চুরির মালিক শচীন।

শচীনকে নিয়ে স্মৃতিচারণা করতে বসলে এখনো এক একটা দিন স্বপ্নের মত কেটে যায়। আসলে একসময় শচীন ছিল অনেকেরই বেঁচে থাকার অঙ্গ । শচীনের অবসর নেওয়ার কথা ভাবতেই পারত না ভারতবাসী।

শুভ ৪৭ তম জন্মদিন শচীন টেন্ডুলকার

সমগ্র বিশ্বজুড়ে শচীনের জনপ্রিয়তা এতোখানি যা শুধু কোন ক্রিকেটার নয় কোন ফুটবলারেরও আজ পর্যন্ত গড়ে ওঠেনি। আসলে শচীনের ক্রিকেট ব্যাট আর শচীনের ব্যক্তিত্ব শচীনকে সবার ভালোবাসার পাত্র করে তুলেছিল।

নিজ নিজ দেশে প্রায় সমস্ত ক্রিকেটাররাই জনপ্রিয়, কিন্তু একমাত্র শচীন টেন্ডুলকার ছিলেন সমগ্র বিশ্বের কাছে জনপ্রিয়, সমগ্র বিশ্বের কাছে প্রিয়। বিদেশের মাটিতেও ৯৮% দর্শক নিয়ে আসার ক্ষমতা ছিল একমাত্র শচীনের। এত বিপুল জনপ্রিয়তা আজকের দিনের ক্রিকেটাররা কল্পনাই করতে পারেন না।

একটা সময় ছিল যখন স্কুলের শিক্ষকরা শচীনের ব্যাটিং শোনার জন্য ক্লাসরুমে রেডিও নিয়ে চলে আসতেন, শচীন কম রানে আউট হলে পুরো দেশ যেন কিরকম বিষন্ন হয়ে থাকতো।

আমরা সবাই জানি রেকর্ড তৈরি হয় ভাঙার জন্যই, হয়তো শচীনের সব রেকর্ডই একদিন চুরমার হয়ে যাবে । কিন্তু শচীনের জনপ্রিয়তা কোনদিন কমবে না, আর এতোখানি জনপ্রিয়তা কোন দিন কোন প্লেয়ার পাবে বলেও মনে করা হয় না।

যে বিপুল জনপ্রিয়তার রেকর্ড শচীন টেন্ডুলকার করে গেছেন তা কোনদিন ভাঙবে না।

শুভ জন্মদিন শচীন টেন্ডুলকার। আজ ৪৭ তম জন্মদিনে আমাদের সবার পক্ষ থেকে আপনার জন্য রইল হাজার হাজার শুভেচ্ছা। ভাল থাকুন মাস্টারব্লাস্টার। ভাল থাকুন ক্রিকেটের ঈশ্বর।

🥳 সারা বিশ্বজুড়ে চলছে করোনা ভাইরাসের তাণ্ডব। মোটামুটি ভাবে দেখতে গেলে সারা বিশ্বই এখন লকডাউনে গৃহবন্দী। গৃহবন্দি হয়েছেন সমস্ত ক্রীড়াবিদরা। এমন অবস্থায় নিজের ৪৭ তম জন্মদিন পালন ধুমধাম করে করবেন না বলেই ঘনিষ্ঠমহলে জানিয়েছেন শচীন।

যদিও নিজের জন্মদিন নিয়ে শচীন টেন্ডুলকারকে কোনরকম টুইট করতে এখনো পর্যন্ত দেখা যায়নি। তবে শচীনের ব্যক্তিত্ব এবং ঘনিষ্ঠ মহল থেকে যে তথ্য পাওয়া যায় তা থেকে মোটামুটি ভাবে পরিষ্কার হওয়া যায় যে এ বছর কেমন ভাবে জন্মদিন পালন করবেন না মাস্টারব্লাস্টার।

যদিও প্রতিবারের মত এবারও শচীন অনুরাগীরা শুভেচ্ছা বার্তায় ভরিয়ে দেবেন শচীনকে । আমাদের সবার তরফ থেকে শচীনকে ৪৭ তম জন্মদিনের জন্য অনেক অনেক শুভেচ্ছা ও ভালবাসা রইল।

Spread the love

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

COVID-19

করোনা ভাইরাস সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য দেখুন